Home » Website Qus & Ans

Website Qus & Ans

সল্প মূল্যে অধিক মানসম্পন্ন ওয়েব সাইট ডেভেলপমেন্ট

ডোমেইন কি?

Why do need a domain name for website: ডোমেইন (domain) হলো একটি মৗলিক নাম যা একটি নিদিষ্ট ওয়েবসাইটকে সনাক্ত করে। প্রত্যেক বস্তু, প্রত্যেক ব্যক্তি এবং প্রত্যেক প্রতিষ্ঠানের যেমন একটি নাম থাকে ঠিক তেমনি ইন্টারনেটে প্রত্যেকটি ওয়েবসাইটেরও এক একটি নাম থাকে। ইন্টানেট ডি এন এস (Internet DNS) পদ্বতিতে ডোমেইন নিয়ন্ত্রন করা হয়। ডি এন এস হলো Domain Name System (DNS)। আপনি যদি একটি ওয়েবসাইট খুলতে চান তবে ইন্টারনেটে আপনাকে একটি স্থান তথা ডোমেইন কিনতে হবে।

হোষ্টিং কি? Hosting or online store space

একটি ওয়েবসাইট তৈরি (Make Bangladeshi Web site ) করতে কনটেন্ট, ছবি এবং বিভিন্ন ফর্মেটের ফাইল প্রয়োজন হয়। এই ডাটা গুলো রাখা জন্য যে জয়গা দরকার তাই হলো হোষ্টিং। উদাহারণ স্বরুপ সাধারণ কম্পিউটারের হার্ডড্রাইভ কিন্তু হোষ্টিং এর হার্ডড্রাইভ কে সার্ভার বলে (Bangladesh best Web server for hosting )। যা দিনে ২৪ ঘন্টায় ওপেন থাকে। ভাল মানের হোস্টিং নির্বাচন না করলে যে সব সমস্যা হতে পারে। যেমনঃ দেরি করে লোড হওয়া, প্রায় প্রতি দিন এক বার না এক বার সার্ভার ডাইন থাকা, বেশি লোক এক সাথে ভিজিট করতে না পারা। বিভিন্ন টাইপের হোষ্টিং আছে যেমন শেয়ারড, রিসেলার, ডেডিকেটেড, ভিপিএস ইত্যাদি।

ব্যবসায়ীক ওয়েবসাইট কি?

একটি ওয়েবসাইট আপনাকে বা আপনার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে অনলাইনে উপস্থাপনা করে। এর মাধ্যমেই আপনি আপনার চিন্তা ভাবনা, জ্ঞান, আপনার সংস্কৃতি বা আপনার দ্রব্য, প্রোডাক্ট, আপনার ওয়ার্কশপ ইত্যাদি ছড়িযে দিতে পারেন সারা বিশ্বজুড়ে। যে কোন স্থানে যেকোন সময় যে কেউ দেখতে পারে আপনার ওয়েবসাইট। ওয়েবসাইট ই আপনাকে কমমূল্যে দিতে পারে সর্বোচ্চ সেবা ও ব্যবসায়ীক প্রসার।

কিভাবে সেবা দিবে একটি ওয়েবসাইট:

মনে করুন আপনার একটি পণ্যে বিক্রি করেন। এখন যারা আপনার অফিস বা দোকান জানা-শুনা শুধু তারা জানবে-কিনবে বা নতুন করো সাথ পরিচয়এর সময় একটি কার্ড দিয়ে আপনার ব্যবসার কথা জানাবেন, এই ভাবে কত জনকে জানাবেন? ৫০০-১০০০জন! কিন্তু আপনার যদি একটি ওয়েব সাইট থাকে তাহলে অটো বিশ্বের লক্ষ লক্ষ লোক দেখবে যে স্থান থেকে যে কোন সময়ে। ক্রেতারা পছন্দ মতো অর্ডার করতে পারবে। আপনার পন্যোর বিবরণ ওয়েব-সাইটে দেওয়ার ফলে তারা সঠিকভাবে জেনে দেখে শুধু অর্ডার করবে। গুগলের সার্চ এর মাধ্যমে বা ফেসবুকের মাধ্যে, ধরুন আপনি আপনার ওয়েবসাইটের একটি পন্য লাইক দিলেন তাহলে আপনার ফেসবুকরে বন্ধুরা (ধরি -৫০০ বন্ধু) সবাই দেখলো। আপনার ৫০০বন্ধু থেকে ১০ যদি লাইক দেয় তহলে তাদের বন্ধুরা দেখলো। তাহলে সর্বমোট ৫,০০০/- লোক দেখলো একমুহুতেই একটি লাইকের জন্য। তার জন্য আপনার একটি ওয়েব-সাইট থাকতে হবে।

ধরি, আপনি একজন লেখক, পাঠকরা জানতে চায় আপনি কেমন লেখেন, আপনার প্রকাশিত অন্যান্য লেখা, আপনার চিন্তা ভাবনা, মোট কথা আপনার সম্পর্কে সব কিছু। আপনার ওয়েবসাইট খুবই অল্প সময়ে আপনাকে সেই সুবিধা করে দিচ্ছে। আপনি একজন সার্ভিস প্রোভাইডার? একজন দোকানের মালিক? একজন কৃষক? একজন রাজনীতিবিদ? আপনি যেই হোন আপনার সম্পর্কে জনগন জানতে চাইলে সবচেয়ে সহজ উপায় আপনার একটি ওয়েব সাইট। ধরেন আপনি একজন গার্মেন্ট মালিক, আপনি বিদেশে আপনার পোশাক রপ্তানি করতে চান। আপনার গ্রাহক আপনাকে স্যাম্পল পাঠাতে বল্লেন খুব দ্রুত। পারবেন আপনি? সমস্যা নেই আপনাকে সাহায্য করবে আপনার ওয়েবসাইট। জাস্ট আপনার স্যাম্পলের ফটোগ্যালারী বানাবেন। আর আপনার সাইটের ঠিকানা পাঠিয়ে দিবেন আপনার ক্লায়েন্ট এর ঠিকানায়।
আমাদের দেশ ডিজিটাল হচ্ছে। মোটামুটি প্রায় সবারই মোবাইল আছে। বেশির ভাগ মধ্যবিত্ত পরিবারএরই আছে কম্পিউটার ও ইন্টারনেট সংযোগ। তাই আপনি সকলের কাছে পৌছার সবচে সহজ উপায় ইন্টারনেট। যেখানে থাকবে আপনার একটি অনলাইন ওয়েবসাইট।

উইকিপিডিয়া ওয়েবসাইট সম্বন্ধে যা বলেনঃ

ওয়েবসাইট (ইংরেজি ভাষায়: website, ‘Web site বা web site) কোন ওয়েব সার্ভারে রাখা ওয়েব পেজ, ছবি, অডিও, ভিডিও ও অন্যান্য ডিজিটাল তথ্যের সমষ্টিকে বোঝায়,যা ইন্টারনেট বা ল্যানের মাধ্যমে অ্যাক্সেস করা যায়। ওয়েব পেজ মূলত একটি এইচটিএমএল ডকুমেন্ট, যা এইচটিটিপি প্রোটোকলের মাধ্যমে ওয়েব সার্ভার থেকে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর ওয়েব ব্রাউজারের স্থানান্তরিত হয়। সমস্ত উন্মুক্তওয়েবসাইটগুলিকে সমষ্টিগতভাবে “ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ওয়েব” বা “বিশ্বব্যাপী জাল” নাম দেয়া হয়েছে।